১২ই আগস্ট, ২০১৮ ইং, রবিবার, ২৮শে শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ



আশুগঞ্জ থানা পুলিশের উদ্যোগে চোখের জলে রিফাতকে স্মরণ করা হল


প্রকাশিত :২০.০১.২০১৮, ৪:০০ পূর্বাহ্ণ

আশুগঞ্জ থানা পুলিশের উদ্যোগে চোখের জলে রিফাতকে স্মরণ করা হল

ছোট শিশু রিফাত স্মরণে শুক্রবার বিকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ থানা পুলিশের উদ্যোগে ও খড়িয়ালা গ্রামবাসীর সার্বিক সহায়তায় “খড়িয়ালা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়” মাঠে দূর্গাপুর ইউপি চেয়ারম্যান জিয়াউল করিম খান সাজু’র সভাপতিত্বে শিশু রিফাতের অকাল মৃত্যুতে শোক সভা ও দোয়ার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।
এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সরাইল সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান ফকির। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সদ্য পদোন্নতি প্রাপ্ত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বশির উদ্দিন, আশুগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ বদরুল আলম তালুকদার, রাইডার লেদার কোম্পানীর চেয়ারম্যান নাজমুল হক, আশুগঞ্জ প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি মোজাম্মেল হক, সাধারণ সম্পাদক সাদেকুল ইসলাম সাচ্চু।
অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মোঃ শাহজাহান মিয়া, শাহজাহান মাষ্টার, ডাঃ আব্দুল মোতালিব, আব্দুল হামিদ রানা, মোঃ মফিজুল ইসলাম, মোঃ শাহ আলম মিয়া, বীর মুক্তিযোদ্ধা ফুল মিয়া, জসিম উদ্দিন, সাদ্দাম হোসেন রিয়াজ প্রমুখ।
হত্যাকান্ডের রহস্য দ্রুত উদঘাটন ও আসামীদের গ্রেফতার করতে পারায় বক্তারা পুলিশের ভূমিকার ভূয়শী প্রশংসা করেন।
সরাইল সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান ফকির তার বক্তব্যে বলেন- রিফাত আমাদের গর্বের ধন। রিফাত হত্যা মামলায় ন্যায় বিচার নিশ্চিত করতে পুলিশ আপ্রাণ চেষ্টা করবে। অনুষ্ঠানে জনাব মনিরুজ্জামান ফকির হাতে ব্যান্ডেজ করা নিয়েই উপস্থিত ছিলেন।
বিশেষ অতিথি অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বশির উদ্দিন রিফাতের বড় ভাই ইমনের পড়া-শুনার সার্বিক দায়-দায়িত্ব গ্রহণ করেন। তিনি রিফাতের পরিবারকে নগদ ৫০ হাজার টাকা প্রদান করবেন বলে জানান। তিনি খড়িয়ালা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় এর নির্মিতব্য ভবনের নাম রিফাতের নামে নামকরণ করার ঘোষণা দেন।
আলোচনা ও দোয়া মাহফিল শেষে আশুগঞ্জ থানা পুলিশ রিফাতের মা বাবার হাতে নগদ ৩০ হাজার টাকা তুলে দেন।
রিফাতের আত্মার মাগফেরাত কামনায় বিশেষ মুনাজাত করা হয়। পরে তাবারুক বিতরণ করা হয়।



এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি
Designed By Linckon